Skip to Content

পূর্ব জেরুজালেমকে ফিলিস্তিনের রাজধানী স্বীকৃতি ওআইসি’র

পূর্ব জেরুজালেমকে ফিলিস্তিনের রাজধানী স্বীকৃতি ওআইসি’র

Be First!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক::
পূর্ব জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী ঘোষণা দেয়া মার্কিন সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে ক্ষোভের আগুন ঝরে পড়লো মুসলিম সংগঠনগুলোর সংগঠন ওআইসিতে। গতকাল তুরস্কের ইস্তাম্বুলে ওআইসি’র জরুরি সম্মেলনে ট্রাম্পের কড়া সমালোচনা করেছেন সম্মেলনে যোগদানকারী দেশগুলোর প্রতিনিধিরা। তারা বিশ্ববাসীর প্রতি জোরালো আহ্বান জানিয়েছেন পূর্ব জেরুজালেমকে ফিলিস্তিনের রাজধানীর স্বীকৃতি দিতে।

ওআইসি’র জরুরি বৈঠক উদ্বোধন করে এমন আহ্বান জানিয়েছেন তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত কাভুসোগলু। সম্মেলনে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোগান যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের ঘোষণার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন। বলেছেন , জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী ঘোষণা করে যুক্তরাষ্ট্র ফিলিস্তিনিদের শাস্তি দিচ্ছে।



কিন্তু ফিলিস্তিনিরা বারবার সহিংসতার বিপরীতে শান্তির পক্ষে নিজেদের অবস্থান প্রমাণ করেছে। তিনি আশা করেন বিশ্বের ১৯৬টি দেশ যুক্তরাষ্ট্রের এমন ঘোষণার বিরুদ্ধে অভিন্ন অবস্থান নেবে। ফিলিস্তিনকে আন্তর্জাতিক বিশ্ব যত তাড়াতাড়ি একটি স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দেবে এবং এর পাশে দাঁড়াবে তখনই ওই অঞ্চলে শান্তি ফিরবে। এরদোগান বলেন, ফিলিস্তিনের সার্বভৌমত্ব এবং স্বাধীনতা মুসলিম বিশ্ব কখনোই ছেড়ে দেবে না। দখলদার রাষ্ট্রকে যখন স্বীকৃতি দেয়া হয়, তখন সেখানে শান্তি প্রক্রিয়ায় মধ্যস্থতাকারীদের কোনো বৈধ ভূমিকা থাকতে পারে না।

ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস বলেন, ট্রাম্প জেরুজালেমকে নিয়ে খেলছেন। তিনি জেরুজালেমকে উপহার হিসেবে তুলে দিতে চান ইসরাইলের হাতে, যেন যুক্তরাষ্ট্রের কোনো রাজ্য উপহার দিচ্ছেন তিনি, যেন সব সিদ্ধান্ত নেয়ার একমাত্র কর্তৃত্ব তারই। তিনি আরো বলেন, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের সিদ্ধান্ত এমন একটি অপরাধ যা বিশ্ব শান্তিকে বিপন্ন করেছে। বিশ্ববাসী যদি পূর্ব জেরুজালেমকে ভবিষ্যৎ ফিলিস্তিন রাষ্ট্রের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি না দেয়, তাহলে এই অঞ্চল স্থিতিশীল থাকবে না।

সম্মেলন শুরুর আগে তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী কাভুসোগলু কতিপয় আরব রাষ্ট্রের দুর্বল প্রতিক্রিয়া নিয়ে কড়া সমালোচনা করেন। গত বুধবার জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প। তুরুস্কের আহ্বানে ওআইসির বৈঠকে বিশ্বের কমপক্ষে ৫০টি মুসলিম দেশের নেতা ও মন্ত্রীরা যোগ দেন।

পরবর্তী পোস্ট পেতে লাইক, কমেন্ট, শেয়ার করে একটিভ থাকুন। নতুনরা পেজে লাইক দিয়ে জয়েন করুন।
Share
Previous
Next

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*