Skip to Content

এতো আলোচনা কেন?

এতো আলোচনা কেন?

Be First!

বিনোদন ডেস্ক::
দীর্ঘদিন ধরে চলচ্চিত্র অভিনয়ের সঙ্গে যুক্ত আছেন চিত্রনায়ক জায়েদ খান। ২০০৮ সালে এই নায়ক ‘ভালোবাসা ভালোবাসা’ ছবির মাধ্যমে ঢালিউডে আত্মপ্রকাশ করেন। ক্যারিয়ারে প্রেম করবো তোমার সাথে, দাবাং, তোকে ভালোবাসতেই হবে, ভালোবাসা সীমাহীন, নগর মাস্তানসহ অনেক ছবিতে দেখা গেছে তাকে।

বর্তমান চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির একজন দক্ষ সাধারণ সম্পাদক হিসেবেও সুনাম কুড়িয়েছেন জায়েদ খান। দেশীয় প্রেক্ষাগৃহে ভারতীয় ছবির প্রদর্শনের বিরুদ্ধে আন্দোলনেও সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়েছেন তিনি। চলচ্চিত্রের সঙ্গে জড়িত মানুষের প্রয়োজনে সব সময় এগিয়ে যান জায়েদ। নানা কারণে অনেকেই এফডিসির ঘরের ছেলে বলে সম্বোধন করেন বডি বিল্ডার এই নায়ককে।

তবে ১০ বছরের ক্যারিয়ারে এত বেশি আলোচনায় তাকে কখনো দেখা যায়নি। ঢাকাই চলচ্চিত্রে ‘অন্তর জ্বালা’ ছবিতে অভিনয়ের শুরু থেকেই ব্যাপক আলোচনায় আছেন জায়েদ খান। শুক্রবার (১৫ ডিসেম্বর) ছবিটি সারাদেশের ১৭৫টি প্রেক্ষাগৃহে একসাথে মুক্তি পেতে যাচ্ছে। এত সংখ্যক হলে একযোগে কোনো ছবির মুক্তিকে রেকর্ড হিসেবে দেখছেন অনেকেই। জায়েদ অভিনীত ছবিটির মুক্তি উপলক্ষে বন্ধ হয়ে যাওয়া ১৭টি সিনেমা হল নতুনভাবে চালু হচ্ছে।

কি এমন আছে জায়েদ খানের ‘অন্তর জ্বালা’ ছবিতে যার ফলে এতো আলোচনা হচ্ছে?



জায়েদ খান বলেন, প্রথমেই আমি দর্শকদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। ছবির পোস্টার থেকে শুরু করে টিজার, ট্রেলার তারা পছন্দ করেছেন। আর এই ছবির নির্মাতা মালেক আফসারি। তিনি সব সময় দর্শকের পছন্দের কথা চিন্তা করে ছবির বানান। অসংখ্য হিট ছবি উপহার দিয়েছেন। আমাকে তিনি নায়ক না একজন অভিনেতা হিসেবে তুলে ধরেছেন। দর্শকরা সিনেমা দেখলে তা বুঝতে পারবেন।

তিনি আরো বলেন, জনপ্রিয় চিত্রনায়ক মান্নার এক ভক্তের গল্প নিয়ে ছবিটি। চরিত্রের সঙ্গে মানিয়ে নেয়ার জন্য তেল মেখে বহুদিন রোদে পুড়েছি গায়ের রঙ কালো করার জন্য। ৩-৪ মাস চুল ও দাড়ি কাটি নাই। এক কথায় অনেক কষ্ট করেছি। চেষ্টা ছিল দর্শকদের একটা ভালো ছবি উপহার দিতে। বাকিটা দর্শকরা বিচার করবেন।

এদিকে ছবির একটি গানের বিরুদ্ধে নকলের অভিযোগ উঠেছে। ছবিটি নকল বলেও গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। এ নিয়ে অনেকবারই কথা বলেছেন নির্মাতা মালেক আফসারি। তিনি বলেন, আপনি একটি ভালো উপন্যাস পড়লে নিশ্চয়ই বন্ধুদের পড়তে দেবেন। আমিও একটি ভালো সিনেমা দেখলে বন্ধুদের দেখার সুযোগ করে দেই। মানুষের জীবনের গল্প নকল হয় না। সব চোখের পানি দেখতে একি রকম। ব্যথাটা আলাদা। আমার ‘অন্তর জ্বালা’ আলাদা।

পরবর্তী পোস্ট পেতে লাইক, কমেন্ট, শেয়ার করে একটিভ থাকুন। নতুনরা পেজে লাইক দিয়ে জয়েন করুন।
Share
Previous
Next

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*